প্রতিভা এবং সৌন্দর্যের সুবাদে, বলিউডে  নিজের স্থায়ী আসন প্রতিষ্ঠা করে নিয়েছেন অভিনেত্রী রকুল প্রীত সিং।

২০০৯ সালে  কন্নড ফিলম ‘গিল্লি’-তে তিনি প্রথম অভিনয় করেন। এরপর তাঁর অভিনয়ে সমৃদ্ধ হয় তেলুগু ছবি ‘কেটারাম’, তামিল ছবি ‘থাডাইয়ারা থাক্কা’, ‘পুথাগাম’ এবং তেলুগু ছবি ‘ভেঙ্কটাদ্রি এক্সপ্রেস’। কিন্তু তিনি বলিউডে আত্মপ্রকাশ করেন ২০১৪ সালে ‘ইয়ারিয়া’ ছবির মাধ্যমে। এই ছবিতে সালোনি চরিত্রে অভিনয় করে তিনি প্রশংসা পান এবং বলিউডে নিজের পায়ের নীচের মাটি শক্ত করেন। আর এবার, সাম্প্রতিক হিন্দি ছবি ‘রানওয়ে ৩৪’-এ অজয় দেবগন-এর বিপরীতে এক পাইলট-এর চরিত্রে রূপদান করে নজর কাড়লেন তিনি। এক সত্য ঘটনাকে কেন্দ্র করে তৈরি হয়েছে এই ছবির কাহিনি এবং চিত্রনাট্য। ছবিটিতে দেখানো হয়েছে, পাইলট-এর উপস্থিত বুদ্ধির জোরে বিমান দুর্ঘটনার হাত থেকে যাত্রীরা বাঁচলেও, পরে এই ঘটনার জন্য পাইলটকেই দায়ী করা হয়। ছবিটিতে এক বিশেষ ভূমিকায় অভিনয় করেছেন অমিতাভ বচ্চন। সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য বিষয় হল এই যে, অমিতাভ বচ্চন এবং অজয় দেবগন-এর মতো শিল্পীরা থাকলেও, রকুল প্রীত সিং এই ছবিতে মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করে নজর কেড়েছেন। তাই, এটাকে তিনি তাঁর কেরিয়ার-এর ‘গ্রেট অ্যাচিভমেন্ট’ বলে-ই উল্লেখ করেছেন।

রকুল অবশ্য অভিনয়ের আগে মডেলিং করতেন। কিন্তু মডেলিং করলেও, অভিনয়ের প্রতি তাঁর প্রবল ঝোঁক ছিল প্রথম থেকে-ই। তাই তিনি সুযোগ পেলে-ই অভিনয়ের জন্য অডিশন দিতেন এবং এভাবেই তিনি কন্নড ছবিতে অভিনয়ের সুযোগ পেয়ে যান।

রকুলের জন্ম এবং বেড়ে ওঠা দিল্লিতে। কলেজে পড়াকালীন-ই তিনি মডেলিং শুরু করেন এবং তারপর অভিনয় জগতে পা রাখেন। তবে ২০০৯ সালে কন্নড ছবি দিয়ে কেরিয়ার শুরু করলেও, ২০১১ সালে সিদ্ধার্থ রাজকুমার-এর সঙ্গে এক মলয়ালম ছবিতে অভিনয় করে বেশ খ্যাতি পান।

অনেক বিজ্ঞাপন ছবিতেও অভিনয় করতে দেখা গেছে তাঁকে।

এখনও পর্যন্ত মোট ৪১টি ছবিতে অভিনয় করেছেন রকুল। তবে ‘রানওয়ে ৩৪’ ছাড়াও, অজয় দেবগনের সঙ্গে রকুল এর আগে অভিনয় করেছেন ‘দে দে পেয়ার দে’ শীর্ষক একটি ছবিতে।

এবার দর্শকরা তাঁকে দেখতে পাবেন আরও বেশ কয়েকটি ছবিতে। এরমধ্যে রয়েছে আয়ুষ্মান খুরানা-র সঙ্গে ‘ডক্টর-জী’, সিদ্ধার্থ এবং অজয় দেবগনের সঙ্গে ‘থ্যাংক গড’। এছাড়া, ‘ছত্রিওয়ালি’ এবং ‘মেরি পত্নি কা রিমেক’ এই দুটি হিন্দি ছবি আছে রকুল-এর হাতে।  অবশ্য এখানেই শেষ নয়, রকুল প্রীত সিং-এর হাতে আছে তামিল ছবি ‘আয়লান’, ‘ইন্ডিয়ান টু’, ‘লেডিস নাইট’ এবং তেলুগু ছবি ‘৩১ অক্টোবর’। সব মিলে বলা যায়, রকুল-এর হাতে এখন হাফ ডজন ছবি। তবে এই অভিনয় -ব্যস্ততার মধ্যেও রকুল তাঁর ব্যক্তিগত জীবনের সুখ-স্বাচ্ছন্দের কথা ভুলে যাননি। প্রযোজক জ্যাকি ভাগনানি-র সঙ্গে তাঁর যে সম্পর্ক গড়ে উঠেছে, সেই সম্পর্কের আইনি শীলমোহর লাগাতে চলেছেন। সবকিছু ঠিক থাকলে হয়তো আগামী বছর, অর্থাৎ ২০২৩ সালে জ্যাকি ভাগনানি-কে বিয়ে করবেন রকুল। রকুলের ভাই আমন জানিয়েছেন এই বিয়ের কথা।

Tags:
COMMENT