সাধারণত ৪০ থেকে ৫০ বছর বয়সি মহিলাদের মধ্যে স্তন ক্যানসারের প্রবণতা বেশি দেখা যায়, এমনই বলছেন বিশেষজ্ঞরা। ৪০ পেরোলেই মহিলাদের তাঁর শরীরে Breast cancer দেখা দেওয়ার ঝুঁকি সম্পর্কে সতর্ক থাকা উচিত।

বয়স্ক মহিলাদের কী কারণে স্তন ক্যানসার হতে পারে, কী ধরনের রিস্ক ফ্যাক্টর কাজ করে, সে সম্পর্কে বেশ কিছু তথ্য জানা গিয়েছে। এই রিস্ক ফ্যাক্টরগুলির জন্যই স্তন ক্যানসারের সম্ভাবনা বাড়ে।Awareness about breast cancer প্রয়োজন৷

সাধারণত একজন মহিলা কোন বয়সে রজঃস্বলা হচ্ছেন এবং কোন বয়সে তাঁর মেনোপজ হচ্ছে, তার ওপর নির্ভর করে তাঁর স্তন ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা কতখানি। যেসব মহিলা ১২ বছর বয়স হওয়ার আগেই রজঃস্বলা হন এবং ৫৫ বছর বয়স হওয়ার পর যাঁদের মেনোপজ হ্য়, তাঁদের স্তন ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা সামান্য বেশি। কারণ, নারী হরমোন ইস্ট্রোজেন এবং প্রোজেস্টেরনের উপস্থিতি, ঋতুচক্র চলার ফলে শরীরে বেশিদিন থেকে যায়, যা স্তন ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়িয়ে দেয়। এছাড়াও, বয়সজনিত অন্যান্য শারীরিক পরিবর্তনও স্তন ক্যানসারের সম্ভাবনা বাড়াতে পারে। বয়স বাড়ার সঙ্গে মহিলাদের স্তনের কোশ ও মাসলের গঠন পরিবর্তিত হয়। এই পরিবর্তনের ফলেও স্তন ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়ে।

এবার  care and treatment for breast cancer, জেনে নেওয়া যাক৷ বয়স্ক মহিলাদের ক্ষেত্রে স্তন ক্যানসারের চিকিৎসায় থেরাপি কম্বিনেশেন সংখ্যায় কম হ্য়। ফলে চিকিৎসা পদ্ধতি সহজ হ্য়ে যায়। কিন্তু এক্ষেত্রে যেসব সাইড এফেক্ট হয়, অনেক সময় তা সামলানো কঠিন হয়ে পড়ে।  যদি কারও স্তন ক্যানসার অ্যাডভান্সড স্টেজে বা প্রাথমিক চিকিৎসার সময় পেরিয়ে যাওয়ার পর ধরা পড়ে, সেক্ষেত্রে কেমোথেরাপিই যথাযোগ্য চিকিৎসা পদ্ধতি।

অল্পবয়সিদের তুলনায় অবশ্য বয়স্কদের শরীরে কেমোর পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া বেশি হয়। রোগীর শরীর এই পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া কতখানি গ্রহণ করতে পারছে এবং তাঁর দৈনন্দিন জীবনে তার কী ধরনের প্রভাব পড়বে, তার ওপর ভিত্তি করেই ডাক্তাররা চিকিৎসা পদ্ধতি ঠিক করেন।

স্তন ক্যানসারের সম্ভাবনা রয়েছে কিনা তা জানার জন্য শারীরিক পরীক্ষা দু’ভাবে হতে পারে। বাড়িতেই যে-কোনও মহিলা নিজের স্তন পরীক্ষা করতে পারেন। একে ‘হোম স্ক্রিনিং’ বলে। আবার চিকিৎসক ও নার্সরা হাসপাতাল বা স্বাস্থ্যকেন্দ্রে পরীক্ষা করতে পারেন। একে বলে ‘ক্লিনিক্যাল স্ক্রিনিং’। পারিবারিক ইতিহাস ও ঝুঁকির বিষয়টি খতিয়ে দেখে চিকিৎসকরা ৪০ বছরের বেশি বয়সি মহিলাদের প্রতি দুই থেকে তিন বছর অন্তর ম্যামোগ্রাফি করানোর পরামর্শ দিতে পারেন।

Tags:
COMMENT